নতুন ইলেকশন কমিশন (ইসি) নির্বাচন সুষ্ঠু করতে পারবে না : ফখরুল - জনতার আওয়াজ
  • আজ বিকাল ৩:৩৬, বুধবার, ১৭ই এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ৪ঠা বৈশাখ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ৮ই শাওয়াল, ১৪৪৫ হিজরি
  • jonotarawaz24@gmail.com
  • ঢাকা, বাংলাদেশ

নতুন ইলেকশন কমিশন (ইসি) নির্বাচন সুষ্ঠু করতে পারবে না : ফখরুল

নিজস্ব প্রতিবেদক, জনতার আওয়াজ ডটকম
প্রকাশের তারিখ: বুধবার, মার্চ ১৬, ২০২২ ১২:৫২ অপরাহ্ণ পরিবর্তনের তারিখ: বুধবার, মার্চ ১৬, ২০২২ ২:১৫ অপরাহ্ণ

 

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট

নতুন ইলেকশন কমিশন (ইসি) নির্বাচন সুষ্ঠু করতে পারবে না বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। তিনি বলেন, ‘ভোটারবিহীন সরকারকে অনেক সুযোগ দেওয়া হয়েছে। আগামী নির্বাচনের আর কোনো সুযোগ দেওয়া হবে না। নির্বাচনকালীন নিরপেক্ষ নির্বাচন কমিশনের কাছে নির্বাচন পরিচালনার দায়িত্ব দিয়ে জবাবদিহিমূলক পার্লামেন্ট গঠন করতে হবে।’

বুধবার (১৬ মার্চ) দুপুরে মানিকগঞ্জের ঘিওর উপজেলার পাঁচুরিয়া এলাকায় বিএনপির প্রয়াত সাবেক মহাসচিব খোন্দকার দেলোয়ার হোসেনের ১১তম মৃত্যু বাষির্কী উপলক্ষে কবর জিয়ারত শেষে তিনি সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন।

দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রণে আনতে সরকারের কোনো ক্ষমতাই নেই উল্লেখ করে মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেন, আজকে দেখেন দেশের কী ভয়াবহ অবস্থা? মানুষজনের নাভিশ্বাস উঠেছে। চালের দাম বাড়ছে, ডালের দাম বাড়ছে, চিনির দাম বাড়ছে, লবনের দাম বাড়ছে। সোয়াবিন তেলের দাম কমাতে পারে না, বাড়তেই আছে। সবজীর দাম বাড়ছে।

তিনি বলেন, সরকারের কোনো ক্ষমতাই নেই দাম কমানোর। কেনো ক্ষমতা নেই? যে তারা, সরকার এই দ্রব্যমূল্যের দাম বৃদ্ধির সাথে জড়িত। কিভাবে? এই যে ব্যবসায়ী যারা আছে, যারা সিন্ডিকেট তৈরি করেছেন তারা হয় মন্ত্রী, না হয়ে সরকারি দলের এমপি, না হয় দলের লোকজন। এই মানিকগঞ্জে সরকারি দলের বাইরে অন্য দলের কেউ ব্যবসা করতে পারে? পারে না।

দ্রব্যমূল্যের ঊধর্বগতিতে জনগণের নাভিশ্বাস উঠেছে উল্লেখ করে বিএনপি মহাসচিব বলেন, এটা আড়াল করতে সরকারের মন্ত্রীরা বলে কিনা মানুষের আয় বেড়েছে। মানুষের আয়ের কথা বলে, আয় কী বেড়েছে? আর ব্যয় কত বেড়েছে সেটা তারা বলে না। এখন যে পরিমান ব্যয় হয়, অনেক সময় দেখা যায় যে সেই পরিমান টাকাই তার ধারদেনা করে আনতে হয়।

তিনি বলেন, আজকে সরকারের গুম-দুনীতি সর্বমহলে একটা ক্যান্সারের মতো ছড়িয়ে পড়েছে। অর্থাত পরিকল্পিতভাবে সরকার এই দেশকে একটা দুর্নীতির স্বর্গ রাজ্যে পরিণত করেছে।

অনুষ্ঠানের আগে বিএনপি মহাসচিব নেতা-কর্মীদের নিয়ে প্রয়াত নেতার কবর জিয়ারত করেন এবং দলের চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া ও ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের পক্ষ থেকে পুস্পমাল্য অর্পন করেন এবং তার আত্মার মাগফেরাত কামনা করে বিশেষ মোনাজাতে অংশ নেন তিনি।

এ সময় বিএনপির হাবিবুর রহমান হাবিব, শামীমুর রহমান, অধ্যক্ষ সোহরাব উদ্দিন, ইসহাক সরকার শায়রুল কবির খান, জেলা বিএনপির এস এ জিন্নাহ কবির, নূরতাজ আলম বাহার, প্রয়াত খোন্দকার দেলোয়ার হোসেনেরে ছেলে খোন্দকার আকবর হোসেন বাবলু খোন্দকার আব্দুল হামিদ খান ডাবলু, খোন্দকার আফতাব হোসেন জগলু, আব্দুল আলিম মনোয়ার, গোলাম মহিয়ার খান শিপার, জেলা আইনজীবি সমিতির জামিলুর রশিদ খান, জাতীয়তাবাদী আইনজীবি ফোরামের আজাদ হোসেন, জেলা কৃষক দলের মোস্তাফিজুর রহমান, প্রজন্ম ৭১ এর ঢালী আমিনুর ইসলাম রিপন প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

Print Friendly, PDF & Email
 
 
জনতার আওয়াজ/আ আ
 

জনপ্রিয় সংবাদ

 

সর্বোচ্চ পঠিত সংবাদ