বিশ্বের বিভিন্ন দেশের চেয়ে বাংলাদেশে দ্রব্যমূল্য অনেক কম বেড়েছে : তথ্যমন্ত্রী - জনতার আওয়াজ
  • আজ সকাল ১০:০৬, মঙ্গলবার, ২১শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ৭ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ১৩ই জিলকদ, ১৪৪৫ হিজরি
  • jonotarawaz24@gmail.com
  • ঢাকা, বাংলাদেশ

বিশ্বের বিভিন্ন দেশের চেয়ে বাংলাদেশে দ্রব্যমূল্য অনেক কম বেড়েছে : তথ্যমন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদক, জনতার আওয়াজ ডটকম
প্রকাশের তারিখ: বৃহস্পতিবার, মার্চ ৩, ২০২২ ৯:৪৪ পূর্বাহ্ণ পরিবর্তনের তারিখ: বৃহস্পতিবার, মার্চ ৩, ২০২২ ৯:৪৪ পূর্বাহ্ণ

 

স্টাফ ক‌রেসপ‌ন্ডেন্ট

বিশ্বের বিভিন্ন দেশের চেয়ে বাংলাদেশে দ্রব্যমূল্য অনেক কম বেড়েছে বলে দাবি করেছেন তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ। তিনি বলেন, ‘পৃথিবীতে সবসময় দ্রব্যমূল্য বেড়েছে, কখনও কমেনি। দেখতে হবে দ্রব্যমূল্যের সঙ্গে মানুষের ক্রয়ক্ষমতা বেড়েছে কি না। গত ১৩ বছরে মানুষের মাথাপিছু আয় বেড়েছে সাড়ে চার গুণ। নিম্নআয়ের মানুষের ক্রয়ক্ষমতা বেড়েছে তিন গুণ। মধ্যআয়ের মানুষের ক্রয়ক্ষমতাও তার কাছাকাছি বেড়েছে।’

বৃহস্পতিবার (৩ মার্চ) জাতীয় প্রেসক্লাবে একটি চাঁদের হাট আয়োজিত এক পুরষ্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা জানান।

তথ্যমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশে আগে দাবি করা হতো, শ্রমিকের মজুরি হতে হবে সাড়ে তিন কেজি চালের মূল্যের সমান। এখন একজন শ্রমিক কমপক্ষে ১২ থেকে ১৫ কেজি চালের মূল্যের সমান মজুরি পায়। মানুষের ক্রয় ক্ষমতা বেড়েছে। আপনি যদি ভোগ্যপণ্যের দামের কথা চিন্তা করেন তাহলে ভারতে, ইউরোপে, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে সমস্ত ভোগ্যপণ্যের দাম বেড়েছে। বাংলাদেশে সেই তুলনায় অনেক কম বেড়েছে।

বিএনপি প্রসঙ্গে তিনি বলেন, বিএনপি বেশ কিছুদিন ধরে কর্মসূচি পালন করছে। খালেদা জিয়াকে বিদেশে পাঠানোর দাবিতে তারা সারাদেশে নির্বিঘ্নে কর্মসূচি করেছে। কিছু কিছু জায়গায় তারা নিজেরা নিজেরা মারামারি করেছে। দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতির কথা বলে তারা যে কর্মসূচি দিয়েছে সেটাও তারা দেশের বিভিন্ন জায়গায় পালন করেছে। তাদের কোন অসুবিধা কোন জায়গায়ই হয়নি। তারা শান্তিপূর্ণভাবে সমাবেশ করুক সেটিই আমরা চাই। গণতান্ত্রিক ব্যবস্থাকে সংহত করতে এসবের প্রয়োজন আছে।

তবে আন্দোলনের নামে বিশৃঙ্খলা তৈরির চেষ্টা করলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে জানিয়ে তিনি বলেন, কিন্তু কোন সমাবেশ করতে গিয়ে যদি বিশৃঙ্খলা করে যেগুলো বিএনপি সবসময় করে এসেছে, জনজীবনে বিপত্তি ঘটায় কিংবা বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করার পাঁয়তারা করে তখন তো পুলিশকে ব্যবস্থা নিতে হয়। যখন তারা নিজেরা মারামারি করে সেটা ঠেকানোর জন্যেও পুলিশকে ব্যবস্থা নিতে হয়। আমি মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর ও তাদের অন্যান্য নেতা যারা কথা বলছেন তাদের অনুরোধ জানাবো সরকারের দিকে আঙ্গুল না তুলে নিজেদের মারামারিটা আগে বন্ধ করেন।

Print Friendly, PDF & Email
 
 
জনতার আওয়াজ/আ আ
 

জনপ্রিয় সংবাদ

 

সর্বোচ্চ পঠিত সংবাদ

Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com
Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com